ছেলের কবরে শায়িত হবেন আনিসুল হক

161

সবুজ সিলেট ডেস্ক ::
বনানী কবরস্থানে ছোট ছেলে শারাফুল হকের কবরে শায়িত হবেন ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আনিসুল হক।

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা এ এস এম মামুন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।তিনি জানান, আজ শনিবার জানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে মেয়রের মা ও শাশুড়ির কবরের পাশে ছোট ছেলের কবরের ওপর আনিসুল হককে দাফন করা হবে।

এর আগে শুক্রবার বাদ জুমা আনিসুল হকের প্রথম জানাজা লন্ডনের রিজেন্ট পার্ক সেন্ট্রাল মসজিদে অনুষ্ঠিত হয়। জানাজায় বিপুলসংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি, কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী ও শুভানুধ্যায়ীরা অংশ নেন। জানাজা শেষে অশ্রুসিক্ত নয়নে তারা আনিসুল হককে বিদায় জানান।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা ২৩ মিনিটে লন্ডনের ওয়েলিংটন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। আজ শনিবার সকালে তার মরদেহ বাংলাদেশে আনা হবে।

এরপর বিকেল ৩টায় আর্মি স্টেডিয়ামে সর্বস্তরের মানুষ তাকে শ্রদ্ধা জানাবেন। সেখানে বাদ আসর জানাজা শেষে তাকে বনানী কবরস্থানে দাফন করা হবে।

আনিসুল হক গত ২৯ জুলাই ব্যক্তিগত সফরে সপরিবারে লন্ডনে যান। সেখানে অসুস্থ হয়ে পড়লে ১৩ আগস্ট তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

১৯৫২ সালের ২৭ অক্টোবর নোয়াখালীতে জন্মগ্রহণ করেন আনিসুল হক। শৈশব কেটেছে নানাবাড়ি ফেনী জেলার সোনাগাজীর আমিরাবাদ ইউনিয়নের সোনাপুর গ্রামে। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে স্নাতক সম্পন্ন করেন তিনি।

আশির দশকে টেলিভিশন উপস্থাপক হিসেবে জনপ্রিয়তা পান আনিসুল হক। ১৯৯১ সালের নির্বাচনের পূর্বে বিটিভিতে শেখ হাসিনা ও খালেদা জিয়ার মুখোমুখি একটি অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করেছিলেন তিনি। ২০০৫-০৬ সালে বিজিএমইএর সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন।

২০০৮ সালে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআই’র সভাপতি নির্বাচিত হন। ব্যবসায়ী আনিসুল হক ২০১৫ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র নির্বাচিত হন।