জীবন দিয়ে খেলতে চেয়েছিলেন নেইমার!

105

স্পোর্টস ডেস্ক::
ঘটনা ২০১৪ সালের। ব্রাজিল-কলম্বিয়ার মধ্যকার কোয়ার্টার ফাইনাল চলছে। ২-১ গোলে জয় পায় ব্রাজিল। কিন্তু ওই দিন একটি দুঃখজনক ঘটনা ঘটে গিয়েছিল। ৮৮ মিনিটে বল দখল করতে গিয়ে নেইমারের পিঠে হাঁটু দিয়ে আঘাত করেছিলেন কলম্বিয়ান উইং-ব্যাক হুয়ান জুনিগা। মাঠে কাতরাতে থাকা নেইমারের বিশ্বকাপ শেষ হয়ে যায় ওখানেই। এত দিন পর সেই চোট নিয়ে কথা বললেন ব্রাজিলিয়ান এই ফরোয়ার্ড।

বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনের ব্যতিক্রমী সংবাদমাধ্যম ‘দ্য প্লেয়ার্স ট্রিবিউন’-এ বার্সেলোনার একসময়ের সতীর্থ জেরার্ড পিকেকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে নেইমার বলেন, মাঠে ব্যথায় কাতরানোর সময় মার্সেলো ‘ডাক্তার, ডাক্তার’ বলে চিৎকার করছিলেন। নেইমার জানতেন, ডাক্তার এলে আর মাঠে থাকতে পারবেন না। এদিকে গোল না পাওয়ায় মার্সেলোর কাছে তার আর্তি ছিল, ‘না, না, আমি খেলতে চাই।’ কিন্তু সতীর্থরা তা শুনেনি। পড়িমরি করে মাঠে ছুটে এলেন ডাক্তার।

নেইমারকে তার জিজ্ঞাসা, ‘কেমন লাগছে?’ মাটিতে মুখ গুঁজে ব্রাজিল তারকা তখনো বলে যাচ্ছেন, ‘না, না, আমি খেলা চালিয়ে যেতে চাই।’কিন্তু তার পায়ে তখন কোনো অনুভূতিই ছিল না! শেষে মাঠ ছেড়েছিলেন কাঁদতে কাঁদতে। স্টেডিয়ামের মধ্যেই হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে।