রাজনীতি কী গোয়েন্দারা চালাচ্ছে, প্রশ্ন ফখরুলের

21

নিউজ ডেস্ক::
গোয়েন্দা তথ্যের উপর ভিত্তি করে রাজনৈতিক দলের সভা অনুষ্ঠানের সিদ্ধান্ত দেওয়া হচ্ছে অভিযোগ তুলে বিষয়টির সমালোচনা করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সোমবার সকালে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, দেশে এখন, এই রাজনীতি কী গোয়েন্দারা চালাচ্ছে? তাদের তথ্যের উপর ভিত্তি করে একটি বিরোধী দলকে সভা করতে দেওয়া না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নির্ভর করবে?

কয়েক বছরে গোটা দেশকে রাজনীতি বিবর্জিত করে ফেলা হয়েছে মন্তব্য করে মির্জা ফখরুল বলেন, “রাজনৈতিক দলগুলোর কোনো অধিকার নেই; রাজনৈতিক নেতাদেরকে মিথ্যা মামলায় হেয় প্রতিপন্ন করা হচ্ছে; কারাগারে নেওয়া হচ্ছে; এবং সাধারণ মানুষের কোনো অধিকার বলতে কিছু নেই।”

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের বক্তবের প্রতি ইংগিত করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, “শুনলে অবাক লাগে আওয়ামী লীগের নেতাদের কথা যে, বেআইনি কর্মসূচি হলে তো পুলিশ বাঁধা দেবেই! কোনটা আইনি, কোনটা বেআইনি? আপনারা (ক্ষমতাসীন দল) পুরো রাস্তা দখল করে মিছিল করবেন সেটা আইনি; আপনারা সোহরাওয়ার্দী উদ্যান ও তার পাশে-পাশে মিছিল করবেন সেটা আইনি। আর আমরা জনসভা করতে যাব সোহরাওয়ার্দী ভেতরে সেটা হয়ে যাবে বেআইনি!

দলের চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য সাবেক মন্ত্রিপরিষদ সচিব এএসএম আবদুল হালিম ও সাবেক সচিব সুজাউদ্দিন উচ্চ আদালত কর্তৃক আগাম জামিন আদেশ নিয়ে নিম্ন আদালতে গেলে তাদের কারাগারে পাঠানোর নিন্দা জানান তিনি।

রাজধানীর মিরপুর বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডে হাজারো বাড়ি-ঘর পুড়ে যাওয়ার ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করে অনতিবিলম্বে ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বসনের দাবি জানান মির্জা ফখরুল।

নয়া পল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য আবদুল মইন খান, নজরুল ইসলাম খান, ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আজম খান, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য, আবদুস সালাম, আতাউর রহমান ঢালী, জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী ও যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন উপস্থিত ছিলেন।