সমঝোতা হয়নি, কমিটি ঘোষণা হচ্ছে না ছাত্রলীগের

22

নিউজ ডেস্ক::
দ্রুত ছাত্রলীগের কমিটি ঘোষণা হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন। ফলে ছাত্রলীগের নতুন নেতৃত্ব পেতে আরো অপেক্ষা বাড়ল। জানা গেছে পদপ্রত্যাশীদের মধ্যে সমঝোতা না হওয়ায় কমিটি গঠন ছাড়াই শেষ হচ্ছে ছাত্রলীগের এবারের সম্মেলন।

ক্ষমতাসীন দলের হাইকমান্ড আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে নতুন কমিটি ঘোষণা করবে বলে পদপ্রত্যাশী নেতাকর্মীদের আশ্বস্ত করেছে বলে জানা গেছে।

সূত্র জানায়, ছাত্রলীগের নতুন নেতৃত্ব নির্বাচনে শুরুতেই বয়স নিয়ে জটিলতা তৈরি হয়। বিষয়টির সমাধান ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর পছন্দের প্রার্থীদের নাম জানতে ছাত্রলীগের বিদায়ী কমিটির দুই শীর্ষ নেতাকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দেখা করতে গণভবনে যান আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা।

গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে নতুন কমিটি ঘোষণা না হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেন সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন। তিনি জানান, আমরা প্রার্থীতালিকা প্রধানমন্ত্রীর কাছে জমা দিয়েছি। নতুন নেতৃত্বের নির্বাচনে শেখ হাসিনার সিদ্ধান্ত মেনে নেবে ছাত্রলীগ। আশা করছি দুই একদিনের মধ্যে প্রধানমন্ত্রী ছাত্রলীগকে নতুন কমিটি উপহার দেবেন।

এর আগে দুইদিন ব্যাপী ছাত্রলীগের ২৯তম জাতীয় সম্মেলন শুক্রবার বিকেলে উদ্বোধন করেন আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রাতে প্রকাশ করা হয় পদপ্রত্যাশীদের পূর্ণাঙ্গ তালিকা, যার মধ্যে সভাপতি প্রার্থী ৬৬ জন ও সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী ১৬৯ জন।

সম্মেলনের দ্বিতীয় দিন শনিবার সকাল থেকেই ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা অপেক্ষায় ছিল কে হচ্ছেন সভাপতি আর কে হচ্ছেন তার ‘রানিং মেট’ তথা সাধারণ সম্পাদক তা জানতে। সম্মেলনস্থল ছাড়াও রাজনীতি উৎসাহী মানুষ, ছাত্র সমাজ সবার মধ্যেই ছিল এই আলোচনা।

পদ প্রত্যাশী নামগুলো নিয়ে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুকেও ছিল জোরালো প্রচার। জেলা উপজেলা পর্যায়ের নেতাকর্মীরা দিনভর তাদের পছন্দের প্রার্থীর সমর্থনে প্রচার চালাতে দেখা গেছে। তবে ছাত্রলীগের বর্তমান ও সাবেক নেতা সবার মুখেই ছিল এককথা, শেখ হাসিনা গ্রহণযোগ্য ও সবার আস্থাভাজন এমন দু’জনকেই নেতা নির্বাচিত করবেন।

সেই অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্ত জানতে ছাত্রলীগের বিদায়ী কমিটির দুই শীর্ষ নেতাকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে কথা বলতে গণভবনে যান আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা। গণভবন থেকে বেরিয়ে জাকির হোসাইন বলেন, আমরা প্রার্থীদের তালিকা প্রধানমন্ত্রীর কাছে জমা দিয়েছি। নতুন নেতৃত্বের নির্বাচনে শেখ হাসিনার সিদ্ধান্ত মেনে নেবে ছাত্রলীগ। আশা করছি দুই একদিনের মধ্যে প্রধানমন্ত্রী ছাত্রলীগকে নতুন কমিটি উপহার দেবেন।