কুলাউড়ায় ভূয়া প্রকল্প সভাপতি সেজে মন্ডপের টাকা আত্মসাৎ

135

কুলাউড়া সংবাদদাতা
কুলাউড়া উপজেলার কর্মধায় টিআর কর্মসূচির টাকা আত্মসাতের অভিযোগ পাওয়া গেছে। স্থানীয় ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি বিধু ভূষণ সিং ভূয়া প্রকল্প সভাপতি সেজে মন্ডপে বরাদ্ধের ৪০ হাজার টাকা আত্মসাৎ করেছেন। এমন অভিযোগ এনে মন্ডপ কমিটির সভাপতি-সম্পাদক কুলাউড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে অভিযোগ করেন। এনিয়ে এলাকায় তোলপাড় চলছে।

জানা যায়, উপজেলার কর্মধা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের ফটিগুলি সার্বজনিন দূর্গা মন্ডপ উন্নয়নের জন্য ২০১৭-১৮ অর্থ বছরে গ্রামীণ অবকাঠামো রক্ষনাবেক্ষন (টিআর) কর্মসূচির নির্বাচনী এলাকা ভিত্তিক ২য় পর্যায় এর অংশ হিসেবে বর্তমান এমপি আব্দুল মতিন ৪০ হাজার টাকার বিশেষ বরাদ্ধ দেন।

বরাদ্ধের খবর পেয়ে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের এক নেতার যোগসাজসে বিধু ভূষণ সিং ওই মন্ডপের ভূয়া প্রকল্প সভাপতি সেজে টাকা উত্তোলন করে আত্মসাৎ করেন। ওই মন্ডপ পরিচালনা কমিটির সভাপতি প্রণব কুমার সিনহা ও সম্পাদক হরেন্দ্র সিং এমপির কাছে গেলে তাদের মন্ডপে বরাদ্ধের বিষয়টি নিশ্চিত হন। উপজেলা প্রকল্প অফিসে গিয়ে জানতে পারেন তাদের মন্ডপে বরাদ্ধকৃত ৪০ হাজার টাকা বিধু ভূষণ সিং উত্তোলন করেছেন। অথচ এই মন্ডপের পরিচালনা কমিটির সাথে তার কোন সম্পৃক্ততা নেই।

এ ব্যাপারে বিধু ভূষণ সিং টাকা আত্মসাতের বিষয়টি অস্বীকার করে জানান, বরাদ্ধকৃত টাকাগুলো মন্ডপের উন্নয়নে ব্যয় করা হয়েছে। মন্ডপ পরিচালনা কমিটির কেউ না হয়েও কিভাবে তিনি প্রকল্প সভাপতি হলেন এমন প্রশ্ন করলে-এর কোন সদুত্তর তিনি দেননি।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) সাদি উর রহিম জাদিদ অভিযোগ প্রাপ্তির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ বিষয়ে ৩ সেপ্টেম্বর উভয়কে নিয়ে একটি শুনানি হয়েছে। বিষয়টির খোঁজ-খবর নিয়ে রিপোর্ট দেয়ার জন্য পিআইও অফিসের সাব এ্যাসিষ্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ারকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।