বিশ্বনাথে বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার

15

বিশ্বনাথ অফিস
বিশ্বনাথে নিখোঁজের একদিন পর ইউসুফ আলী (৬৫) নামের এক বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের শিক্ষা নোয়াগাঁও (ছিক্কা) গ্রামের মৃত মন্তাজ আলীর পুত্র। গতকাল বুধবার দুপুরে গ্রামের পাশ্ববর্তী ধানী জমি থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। তাঁর মৃত্যুকে ঘিরে সৃষ্টি হয়েছে নানা রহস্যের।

পরিবারের দাবি ইউসুফ আলীকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ওসমানীনগর সার্কেল) সাইফুল ইসলাম, থানার ওসি শামসুদ্দোহা পিপিএম ও পরিদর্শক (তদন্ত) দুলাল আকন্দ।

জানা গেছে, গত শনিবার সকালে বাড়ির সীমানা নিয়ে ইউসুফের দুই ভাই মুক্তার ও মুুছনের মধ্যে ঝগড়া হয়।

এ ঘটনায় ৮ অক্টোবর মুক্তারের স্ত্রী জোনাকী বেগম বাদী হয়ে ইউসুফের স্ত্রী শাহারুন নেছাসহ ৪ জনকে আসামী করে মামলা (নং-৩) দেন। এর তদন্ত কাজে মঙ্গলবার বিকেলে থানার এসআই নবী হোসেন সাদা পোষাকে ইউসুফদের বাড়িতে যান। সেসময় তিনি গোপনে ঘরেই অবস্থান করছিলেন। পুলিশ চলে আসার পর মাগরিবের নামাজ আদায় করে ঘর থেকে বেরিয়ে আর ফিরে আসেননি ইউসুফ আলী। অনেক খোঁজাখুঁজির পরে বুধবার সকালে গ্রামের পাশ্ববর্তী ধানী জমিতে তার লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেন লোকজন। এদিকে ঘটনার পর থেকেই বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র চলে যান মুক্তারদের পরিবারের লোকজন। এতে করে ইউসুফ আলীর মৃত্যু নিয়ে রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ইউসুফ আলীর স্ত্রী শাহারুন নেছা সাংবাদিকদের বলেন, পূর্বশত্রুতার বশে তার স্বামী ইউসুফ আলীকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে জানিয়ে তিনি এর সাথে জড়িতদের শাস্তি দাবী করেন।

থানার ওসি শামসুদ্দোহা পিপিএম বলেন, লাশ উদ্ধার করে সুরতহালের পর ময়না তদন্তের জন্যে সিলেট ওসমানী হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়।

সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ওসমানীনগর সার্কেল) সাইফুল ইসলাম বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তী আইনী পদক্ষেপ নেয়া হবে।