সিলেটে শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম উদ্বোধন

42

স্টাফ রিপোর্টার
গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সিলেটসহ দেশের ৬৬টি স্থানে শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়ামের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
গতকাল রোববার দুপুরে ভিডিও কনফারেন্সে ৬ জেলায় যুব প্রশিক্ষণ কেন্দ্র ও উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের একটি প্রকল্পের আওতায় এই ৬৬টি মিনি স্টেডিয়াম নির্মাণ করা হয়।
উদ্বোধনকালে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমি চাই প্রতিটি উপজেলায় মিনি স্টেডিয়াম করতে। কিন্তু জায়গার অভাবে অনেক স্থানে মিনি স্টেডিয়াম করা সম্ভব হচ্ছে না। তিনি দলীয় নেতাদের কাছে স্টেডিয়ামের জায়গা খোঁজার জন্য অনুরোধ করেন।
তিনি বলেন, ক্রিকেট খেলা বাংলাদেশকে সারাবিশ্বে পরিচিত করেছে। একই সঙ্গে বাংলাদেশের সুনাম বয়ে এনেছে। তিনি বলেন, ক্রীড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শুধু সাভারে না রেখে প্রতিটি জেলায় নেয়া যায় কিনা সে চেষ্টা করতে হবে।
শেখ হাসিনা বলেন, দেশের জনগণ আবার যদি ভোট দেয় এবং সরকার গঠন করার সুযোগ দেয় তাহলে ২০২০ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে ক্ষুধা এবং দারিদ্র্যমুক্ত করবো। দেশের আরও উন্নয়নের জন্য নতুন প্রকল্প করা হবে। বাংলাদেশে একটি পরিবারও গৃহহারা থাকবে না। প্রতিটি মানুষ ঘর পাবে।
তিনি বলেন, প্রথম যখন নীলফামারীতে ইপিজেড স্থাপন করতে চাই তখন অনেকে ব্যঙ্গ করে বলেছিল ওখানে কে কাজ করতে যাবে। আমি কারও কোনো কথায় কান না দিয়ে কাজ শুরু করি। আজ সেখানে ৩৩ হাজার মানুষের কর্মসংস্থান হয়েছে। ছেলে-মেয়েরা বলছে, এখানে আমরা খুব ভালো আছি। আমরা এখন এখানে আর মঙ্গা দেখি না। প্রত্যেক বছর কার্তিক মাস এলে এ এলাকায় মঙ্গা শুরু হতো। এখন আর সেটা নেই। এ কথা শুনে খুব ভালো লাগলো।
শেখ হাসিনা বলেন, স্পোর্টসে বাংলাদেশ আরও এগিয়ে যাক। যুব সমাজ সুস্থ-সুন্দর থাকুক। খেলাধুলা, লেখাপড়া সব দিক থেকে তারা নিজেদের গড়ে তুলুক। বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা যেন থেমে না যায়।
ভিডিও কনফারেসন্সে সিলেট সদর উপজেলার শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম উদ্বোধন উপলক্ষ্যে সিলেটের জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- জেলা প্রশাসক কাজী এমদাদুল ইসলাম, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংঘটনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন, সিলেটের পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান সহ প্রশাসনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা।
মন্ত্রণালয় সূত্র আরও জানায়, প্রধানমন্ত্রীর অঙ্গীকার অনুযায়ী এ প্রকল্পের প্রথম ধাপে ১৩১টি উপজেলায় মিনি স্টেডিয়াম নির্মাণ করা হবে। এই প্রকল্পটি ২০১৫ সালে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটিতে (একনেক) অনুমোদন লাভ করে।
দেশের খেলাধুলার উন্নয়নের লক্ষ্যে প্রতিটি উপজেলায় ১২৩ কোটি টাকা ব্যয়ে একটি করে মিনি স্টেডিয়াম নির্মাণের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে সরকার।