৮ ডিসেম্বর ঐক্যফ্রন্টের ইশতেহার ঘোষণা

9

সবুজ সিলেট ডেস্ক

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচনী ইশতেহার ৮ ডিসেম্বর প্রকাশিত হবে বলে জানিয়েছেন জোটের শীর্ষ নেতা গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন।

বুধবার বিকেলে রাজধানীর পুরানা পল্টনে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নতুন কার্যালয় পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে তিনি আরও বলেন, ঐক্যফ্রন্ট ও বিএনপির ইশতেহার একই হবে।

এ সময় জেএসডির আ স ম আবদুর রব, গণফোরামের সুব্রত চৌধুরী, মোস্তফা মহসিন মন্টু, রেজা কিবরিয়া, সুলতান মো. মনসুর আহমেদ, বিএনপির বরকত উল্লাহ বুলু, আবদুস সালামসহ অন্য নেতারা উপস্থি ছিলেন।

ড. কামাল বলেন, নির্বাচনে দেশের জনগণ ভোটাধিকার প্রয়োগের মধ্য দিয়ে তাদের মালিকানা পুনরুদ্ধার করবে। সরকার ভেবেছিল, ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির মতো একটা যেনতেন নির্বাচন করে ফের ক্ষমতায় চলে আসবে। তাই বিরোধী দল নির্বাচনে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আওয়ামী লীগ সরকার অনিশ্চয়তায় পড়ে গেছে।

পুলিশের কর্মকাণ্ডের প্রতি খেয়াল রাখার আহ্বান জানিয়ে ড. কামাল বলেন, পুলিশ কী ভূমিকা রাখে, আপনারা তা খেয়াল রাখবেন। সরকারি দলের প্রার্থীদের কর্মকাণ্ডের দিকেও নজর দেবেন।

সবাইকে ভোটের দিন সকাল থেকে ভোট দেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে কামাল হোসেন বলেন, ভোর থেকে ভোটকেন্দ্র পাহারা দিতে হবে। কেউ যেন ভোট কারচুপি করতে না পারে, সেদিকে সজাগ থাকতে হবে।

সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য সংবাদমাধ্যমের সর্বাত্মক সহযোগিতা প্রত্যাশা করে ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা কামাল হোসেন বলেন, ‘আপনারা পাহারা দিলে আশা করি, সরকার যত অপচেষ্টাই করুক, তা মোকাবেলা করে মানুষের প্রাপ্য অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন আদায় করা যাবে।’

বর্তমান বাংলাদেশ জনগণের ‘নিয়ন্ত্রণে নেই’ মন্তব্য করে প্রবীণ এ আইনজীবী বলেন, নাগরিকদের যেভাবে সংসদ থেকে সরিয়ে রাখা হয়েছে, তাতে এটি কোনোভাবেই সংসদ নয়। এটা অনির্বাচিত স্বঘোষিত সংসদ।