সিলেটে তিনদিন বৃষ্টিহীন থাকবে, বাড়বে তাপমা

25

নিজস্ব প্রতিবেদক:
বৈশাখের শুরুতেই ঝড়-বৃষ্টির পর বাতাসের আর্দ্রতা বেশি থাকায় অস্বস্তিকর গরম পড়েছে। সেই সাথে বাড়তে শুরু করেছে সিলেটের তাপমাত্রা। শুধু সিলেটেই নয়, সারাদেশেই পড়েছে অসহনীয় গরম। সারাদেশের মতো আগামী সপ্তাহে সিলেটেও তাপমাত্রা আরো বাড়বে বলে জানিয়েছে সিলেট আবহাওয়া অফিস।

একদিকে গরমে কাবু সিলেটের মানুষ। এ অবস্থায় আগামী ৩ দিন সিলেটে ঝড় বৃষ্টির সম্ভাবনা তেমন একটা নেই বলে জানিয়েছেন সিলেটের জ্যেষ্ঠ আবহাওয়াবিদ সাঈদ আহমদ চৌধুরী।

তিনি জানান- এরই মধ্যে সিলেটের তাপমাত্রা ৩৫.১ ডিগ্রি ছুঁয়ে ফেলেছে। গতকাল মঙ্গলবারও তাপমাত্রা ছিল ৩৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এসপ্তাহের দুদিনসহ আগামী আগামী সপ্তাহে সিলেটে তাপমাত্রা আরো বাড়বে।

তিনি বলেন- এখন গরম এবং বৃষ্টি মৌসুম। তবে ঠিক এই সময়ে এমন বেশি তাপমাত্রা এর আগে খুব একটা দেখা যায়নি। এছাড়া গত কয়েকদিন থেকে শুরু হয়ে গত রাত পর্যন্ত মাঝে মাঝে ঝড় বৃষ্টি হলেও আগামী ৩ দিন সিলেটে ঝড় বৃষ্টির সম্ভাবনা খুবই কম। এর পর আবার বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে বলে তিনি জানান।

এদিকে মঙ্গলবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় চুয়াডাঙ্গায়। ৩৫ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। পাশাপাশি ঢাকা, রাজশাহী ও খুলনার অনেক এলাকায় ৩৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ওপরে তাপমাত্রা ছিল। তবে রাজশাহী, রংপুর ও সিলেটে ঝড়-বৃষ্টি হয়েছে।

ঢাকা থেকে আবহাওয়াবিদ আফতাব উদ্দিন বলেন, চৈত্রের শেষে কালবৈশাখীর দাপটের সঙ্গে বজ্রঝড় ও শিলাবৃষ্টি ছিল। এখন তাপমাত্রা বাড়ছে। আরও কয়েক দিন তা অব্যাহত থাকবে। বাতাসে জলীয়বাষ্প বেশি থাকায় ভ্যাপসা গরমে অস্বস্তি রয়েছে জনজীবনে।

১৮-২০ এপ্রিলের মধ্যে বয়ে যেতে পারে তাপপ্রবাহ। চলতি মাসের শেষ দিকে ফের কালবৈশাখীর দাপট থাকবে; সাগরে নিম্নচাপেরও শঙ্কা রয়েছে।’

এপ্রিল-মে মাসের উষ্ণ আবহাওয়ায় কালবৈশাখী, বজ্রঝড়ের অনুকূল পরিবেশ থাকে। বিশেষ করে উত্তর-উত্তর পশ্চিম এবং দক্ষিণ-পশ্চিমে কালবৈশাখীর দাপট বেশি। এমন সময়ে ঘণ্টাখানেকের মধ্যে বিদ্যুৎ চমকানো ও ঘন ঘন বজ্রপাতের মতো পরিস্থিতি তৈরি হওয়া অস্বাভাবিক কিছু নয়।

এপ্রিলের দীর্ঘমেয়াদি আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, এ মাসে সাগরে এক থেকে দুটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে। এর মধ্যে একটি নিতে পারে ঘূর্ণিঝড়ের রূপ।

এ অবস্থায় আবহাওয়াবিদ আফতাব উদ্দিন সবাইকে সাবধানতা অবলম্বনের পরামর্শ দিয়েছেন।