প্রিয়ার ব্যাখ্যা না শুনে ব্যবস্থা নয়: প্রধানমন্ত্রীর বরাতে কাদের

10

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের ওপর নির্যাতনের বিষয়ে যে অভিযোগ প্রিয়া সাহা করেছেন, সে ব্যাপারে তাঁর ব্যাখ্যা না জানা পর্যন্ত কোনো ধরনের আইনি ব্যবস্থা না নিতে প্রধানমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন।

লন্ডনে অবস্থানরত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বরাত দিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এ কথা জানিয়েছেন। আজ রোববার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ঢাকা মেট্রোরেল নেটওয়ার্কের সময়বদ্ধ পরিকল্পনার ব্র্যান্ডিং–বিষয়ক সেমিনার শেষে তিনি এ কথা বলেন।

প্রিয়া সাহা বাংলাদেশ হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক। তিনি হোয়াইট হাউসে ট্রাম্পের কাছে অভিযোগ করেন, ৩ কোটি ৭০ লাখ হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিষ্টান নিখোঁজ হয়েছেন। তাঁর বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। কট্টরপন্থী মুসলিমরা এটা করছে। আর ক্ষমতাসীনরা তাদের আশ্রয় প্রশ্রয় দিচ্ছে।

আজ অনুষ্ঠানের পর সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশের বাইরে গিয়ে তিনি কেন এ ধরনের বক্তব্য দিয়েছেন, সেটা দেশে ফিরে এলে তাঁকে আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেওয়া উচিত। তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী আমাদের লিডার, গতরাতে আমাকে মেসেজ পাঠিয়েছেন, সেটা হচ্ছে, “এখানে তড়িঘড়ি করে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কোনো প্রয়োজন নেই। প্রিয়া সাহা যা বলেছেন, শি শুড মেইক এ পাবলিক স্টেটমেন্ট”।’

সরকারের অনুমতি ছাড়া রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করা যায় না, স্মরণ করিয়ে দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, এসব মামলা গ্রহণ করা হবে না। অভিযোগের বিষয়ে প্রিয়া সাহার বক্তব্য জানার আগে তাঁর বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নেওয়া হবে না।

মন্ত্রী কাদের বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রীর একটা মামলা করার কথা ছিল, তাঁকে তা না করতে বলা হয়েছে এবং আইনমন্ত্রীর সঙ্গেও এ ব্যাপারে কথা হয়েছে। এ ছাড়া প্রিয়া সাহার ব্যক্তিগত বাড়িঘর, সম্পদ, সেখানে যেন নিরাপত্তা থাকে সে ব্যাপারে পদক্ষেপ নিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে প্রধানমন্ত্রীর বার্তা জানিয়ে দিতে বলেছি।’

বর্তমান প্রেক্ষাপটে প্রিয়া সাহার দেশে ফেরার বিষয়ে জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘তিনি তাঁর দেশে আসবেন না কেন। এখানে হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের রানা দাশগুপ্তের সঙ্গে কথা হয়েছে। এই বক্তব্য প্রিয়ার ব্যক্তিগত মন্তব্য, এর সঙ্গে পরিষদের কোনো সম্পর্ক নেই।’