কমলগঞ্জে ধলাই নদীর চর অপসারণ কাজের উদ্বোধন

4

কমলগঞ্জ প্রতিনিধি
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার ধলাই নদীর চর অপসারণের খনন কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। মৌলভীবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ড বন্যা সমস্যা থেকে উত্তরণে ও ধলাই নদীর স্বাভাবিকতা ফিরিয়ে আনতে গত শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৪টায় পৌরসভার আলেপুর এলাকায় ২২টি স্থানে চর কাজের আনুষ্ঠানিক ভাবে উদ্বোধন করেন মৌলভীবাজার-৪ আসনের সাংসদ সদস্য উপাধ্যক্ষ ড. এম শহীদ।
মৌলভীবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ড সূত্রে জানা যায়, ৪ কোটি ৫৪ লাখ টাকা ব্যয়ে ৩টি প্যাকেজে ঢাকার আরাধনা এন্টারপ্রাইজ চর অপসারণ কাজ করছে। ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে ধলাই নদের বিভিন্ন স্থানে ২২টি বড় চর অপসারণ কাজ চলমান রয়েছে।
এই কাজের জন্য গত বছরে কাজের নির্দেশনাপত্র হলেও নানা জটিলতায় কিছুটা বিলম্বে গত ডিসেম্বর মাসে আংশিক কাজ শুরু হয়। পৌরসভার আলেপুর (উজিরপুর) এলাকায় আনুষ্ঠানিকভাবে কাজের উদ্বোধন করেন সাংসদ উপাধ্যক্ষ ড. এম এ শহীদ।
আকাবাঁকা ও ইউ আকৃতির ধলাই নদে অসংখ্য চর দেখা দিয়েছে। ফলে বর্ষা মৌসুমে পানি প্রবাহে প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি হচ্ছে। অল্প বর্ষণেই উজানের পাহাড়ি ঢলে ধলাই নদ ফুলে ফেঁপে উঠে। প্রবল গ্রোতে বাঁক ও ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে নদের প্রতিরক্ষা বাঁধে ভাঙ্গন দেখা দেয়।
নদির ভাঙনে বাড়িঘর, ফসলি জমি ও গ্রাম্য রাস্তাঘাটের ব্যাপক ক্ষতি সাধিত হয়। এ কারণেই ধলাই নদকে কেউ কেউ কমলগঞ্জবাসীর দুঃখ হিসেবে মনে করেন। কৃষকদেরও দীর্ঘদিনের দাবি এই নদ খনন ও সংস্কার।
বিগত বছরে বর্ষা মৌসুমে নদের একাধিক স্থানে ভাঙ্গন ও বাঁধের বেশ কয়েকটি ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে ফাটল দেখা দেয়। বাংলাদেশের ৬৪ টি জেলার খাল, জলাশয়, ও নদী পূণখনন প্রকল্পের (১ম পর্যায়) আওতায় কমলগঞ্জের ধলাই নদিও ২২টি স্থাণের চর অপসারণ কাজের শুভ উদ্বোধন হয়েছে।
পরে এক সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। কমলগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো. জুয়েল আহমদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাংসদ উপাধ্যক্ষ ড. এম এ শহীদ।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলার ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী কর্মকর্তা সহকারি কমিশনার (ভূমি) নাসরিন চৌধুরী, পানি উন্নয়ন বোর্ড মৌলভীবাজারের তত্ত¡াবধায়ক প্রকৌশলী মো. মশিউর রহমান, মৌলভীবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী রনেন্দ্র শংকর চক্রবর্তী, কমলগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আছলম ইকবাল, সদর ইউনয়িনের চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান, সমাজ সেবক ইমতিয়াজ আহমদ প্রমুখ।