সাধারণ মানুষও মোদিকে সম্মান জানাবে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

6

স্টাফ রিপোর্টার
মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি যখন ঢাকায় আসবেন, তখন তাকে সরকার সর্বোচ্চ সম্মান জানাবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন। সাধারণ মানুষও মোদিকে সম্মান জানাবে বলে মনে করেন তিনি।
গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে সিলেটের খাদিমপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ কমপ্লেক্সসহ বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কার্যক্রমের উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ড. মোমেন এ কথা জানান।
আগামী ১৭ মার্চ মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে ‘কি-নোট স্পিকার’ হিসেবে ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদিকে আমন্ত্রণ জানিয়েছে সরকার। তবে দিল্লিতে সম্প্রতি উগ্র হিন্দুত্ববাদীরা দাঙ্গা বাধিয়ে সংখ্যালঘুদের হত্যা এবং তাদের বাড়িঘর ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটালে এর পেছনে মোদি ও তার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে অভিযুক্ত করে বিক্ষোভে নামে দেশের কিছু দল ও সংগঠন। তারা মোদিকেই উগ্র হিন্দুত্ববাদী নেতা আখ্যা দিয়ে মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে তার আগমনের তীব্র বিরোধিতা করছেন। যদিও মোদির সফরের সার্বিক বিষয় চূড়ান্ত করতে বাংলাদেশ সফর করছেন ভারতের পররাষ্ট্র সচিব হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা।
ড. মোমেন বলেন, যারা ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সফরের বিরোধিতা করছেন, এটা তাদের নিজস্ব ব্যাপার। গণতান্ত্রিক দেশে সবার মতামত জানানোর অধিকার আছে। তবে আমাদের স্বাধীনতা যুদ্ধের বন্ধুরাষ্ট্র ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে সর্বোচ্চ সম্মানই জানাবে সরকার। বাঙালি বরাবরই অতিথিপরায়ণ, তাই অতিথিকে সম্মান জানাবে এদেশের সাধারণ মানুষও।
এর আগে পররাষ্ট্রমন্ত্রী সিলেট সদর উপজেলার খাদিমনগর ইউনিয়নের সাহেবের বাজারে রাস্তা এবং সাহেবের বাজার সংলগ্ন মসজিদ উদ্বোধন করেন।
এসময় সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলাম, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন খান, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন, আওয়ামী লীগ নেতা আজাদুর আজাদ, মহানগর যুবলীগের সভাপতি আলম খান মুক্তি ও খাদিমনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আফসর আহমদ উপস্থিত ছিলেন।

  •