আগামীকাল রাতে পবিত্র শবে বরাত

45

স্টাফ রিপোর্টার
মুসলিম উম্মাহর কাছে একটি মহিমান্বিত, তাৎপর্যমন্ডিত ও ফজিলতপূর্ণ রাত পবিত্র শবে বরাত। শবে বরাত পালিত হয় শাবান মাসের পঞ্চদশ রজনীতে। রাসুলে পাক (সা:) হাদিসে এ মহিমান্বিত রাতকে ‘লাইলাতুন্ নিসফ্ মিন’ শাবান বা ১৫ শাবানের রাত বলেছেন। ফার্সি শব্দ ‘শব’ অর্থ রাত/রজনী। আর বারাআত অর্থ মুক্তি, নিষ্কৃতি, অব্যাহতি, পবিত্রতা ইত্যাদি। শবে বরাতের শাব্দিক অর্থ হল- মুক্তি, নিষ্কৃতি ও অব্যাহতির রজনী। এ রাতে যেহেতু আল্লাহ তা’আলা পাপী লোকদের ক্ষমা করেন, নিষ্কৃতি দেন ও জাহান্নাম থেকে মুক্তি দেন, সেহেতু এ রাতকে লাইলাতুল বারাআত বা শবে বরাত বলা হয়। শাবানের আরেকটি অর্থ হলো মধ্যবর্তী সুস্পষ্ট। যেহেতু এ মাসটি রজব ও রমজানের মধ্যবর্তী; তাই এ মাসকে শাবান মাস নামকরণ করা হয়। শাবান মাসটি অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ একটি মাস। এ মাসের পূর্ণ নাম হলো ‘আশ শাবানুল মুআযযম’ অর্থ মহান শাবান মাস (লিসানুল আরব, ইবনে মানযূর (র:)। সুতরাং মানুষ যদি এ রাতে নিজ কৃতকর্মের জন্য অনুতপ্ত হয়ে চক্ষু হতে অশ্রু প্রবাহিত করে তাহলে আল্লাহ তার পাপরাশি মুক্ত করে দেন।
আগামীকাল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে পবিত্র শবে বরাত। ১৪ শাবান দিনগত রাতে মহিমান্বিত এ রজনী আসে। ২৬ মার্চ সন্ধ্যায় শাবান মাসের চাঁদ দেখা যায়, সে হিসেবে ৯ এপ্রিল বৃহস্পতিবার রাতে শবে বরাত পালনের ঘোষণা দেয় ইসলামিক ফাউন্ডেশন। পবিত্র এ রাতে বান্দারা নফল নামাজসহ ইবাদত বন্দেগিতে রাত অতিবাহিত করেন। শব শব্দটি ফার্সি যার অর্থ রাত আর বরাত শব্দের অর্থ ভাগ্য।
বিশেষ এ রাতে মহান আল্লাহ তায়ালা আগামী এক বছরের জন্য মানুষের রিজিক, জন্ম-মৃত্যু ইত্যাদি বিষয় নির্ধারণসহ তার সৃষ্ট জীবের ওপর অসীম রহমত নাজিল করে থাকেন বলে এ রাতকে শবেবরাত বা ভাগ্যরজনী বলা হয়। এ রাতে জিয়ারত করেন মা-বাবাসহ মুরব্বীদের কবর, আল্লাহর আউলিয়াদের মাজার জেয়ারতেও যান মুসল্লীরা। কিন্তু এবার পরিস্থিতি অন্যরকম। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব রুখতে ঘর থেকে বেরুনোর ব্যাপারে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। মানুষ পারতপক্ষে ঘর থেকে বেরুচ্ছেন না। মসজিদে নামাজ আদায়েও বাধ্যবাধকতা দেয়া হয়েছে। মসজিদ সংশ্লিষ্টরা ছাড়া অন্য কোনো মুসল্লীকে মসজিদ যেতে নিরুৎসাহিত করা হয়েছে। শবে বরাতের নামাজসহ সব ইবাদত ঘরে থেকে করার জন্য ইসলামিক ফাউন্ডেশন থেকেও নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। শীর্ষস্থানীয় ওলামায়ে কেরামও, মুসল্লীদের বেশি বেশি ইস্তেগফার, দরুদ শরীফ পাঠের মধ্য দিয়ে মহিমান্বিত এ রাত পালনের আহ্বান জানিয়েছেন।

  •