সিলেটে নতুন আক্রান্ত ১৩ জন যেসব এলাকার

181

স্টাফ রিপোর্টার
সিলেটে সর্বশেষ (২২ এপ্রিল) করোনা আক্রান্ত হিসেবে আরও ১৩ জন শনাক্ত হয়েছেন। শনাক্ত হওয়া ১৩ জনের মধ্যে একজন এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজের ইন্টার্ন চিকিৎসক যিনি সম্প্রতি গাজীপুর থেকে ফিরেছেন ও শামসুদ্দিন হাসপাতালের একজন স্টোর কিপার যার বাড়ি সদর উপজেলায়। এছাড়াও বাকি ১১ জনের মধ্যে ৫ জনের বাড়ি হবিগঞ্জ, মৌলভীবাজারের ২ জন ও সুনামগঞ্জের ৪ জন রয়েছেন।

হবিগঞ্জের ৫ জনের মধ্যে লাখাই উপজেলার এক যুবক (৩৮)। তিনি সম্প্রতি ঢাকা থেকে ফিরেছেন। উপজেলার করাব ইউনিয়নের মনতৈল গ্রামের ওই যুবক ১২ দিন আগে ঢাকা থেকে লাখাইয়ে আসেন। এ নিয়ে লাখাইয়ে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হলো ৫। এর আগে এ উপজেলায় আরও চারজনের করোনা শনাক্ত করা হয়।

নতুন শনাক্ত ৫ জনের মধ্যে বাহুবল উপজেলায় ২ জন। এদের মধ্যে একজন পুরুষ ও একজন নারী। আক্রান্ত পুরুষের বয়স ৩০ বছর ও নারীর বয়স ২০ বছর।

এছাড়াও মাধবপুরের উপজেলায় এই প্রথম এক নারীর করোনা শনাক্ত হয়েছে। তিনি উপজেলার বহরা ইউনিয়নের ঘিলাতলী গ্রামের বাসিন্দা। তাঁর আনুমানিক বয়স ৪০। করোনা আক্রান্ত নারীকে হবিগঞ্জ জেলা সদর আধুনিক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে এবং তার বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে।
অপরদিকে করোনা শনাক্ত হওয়া অপর এক যুবকের বাড়ি চুনারুঘাট উপজেলায়। তার বয়স ২৯ বছর।

এদিকে সুনামগঞ্জ জেলায় করোনা আক্রান্ত ৪ জনের মধ্যে দুইজনের নমুনা সংগ্রহ করা হয় দিরাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। এরমধ্যে একজনের বাড়ি দিরাই (২৬), অন্যজন তরুণী (২০) এর বাড়ি দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলায়। এছাড়া বাকি আক্রান্তদের একজন জগন্নাথপুরের (১৮) এবং অন্য জনের বাড়ি (৩৮) ছাতক উপজেলায়।

আর মৌলভীবাজার জেলায় করোনা শনাক্ত ২ জনের বাড়িই কুলাউড়া উপজেলায়। ২ জনের একজন নারী (৬০) ও একজন পুরুষ (২৫)।

বৃহস্পতিবার (২৩ এপ্রিল) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেট বিভাগের উপ-পরিচালক ডা. আনিসুর রহমান সিলেট ভয়েসকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছে। তিনি বলেন, সকলের দেয়া তথ্য অনুযায়ী কোন না কোন ভাবেই তারা ঢাকা, নারানগঞ্জ থেকে সম্প্রতি ফিরেছেন। আবার কেউ এসব জায়গায় না গেলেও ঢাকা-নারায়ঙ্গঞ্জ কিংবা গাজীপুর থেকে আসা কার সংস্পর্শে গিয়েছিলেন।

এর আগে (২২ এপ্রিল) সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজে স্থাপিত বিশেষায়িত ল্যাবে টেস্টে ১৩ জনের করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। এর মধ্যে সিলেট জেলার ২ জন, হবিগঞ্জের ৫ জন, মৌলভীবাজারের ২ জন ও সুনামগঞ্জের ৪ জন রয়েছেন।

বুধবার ওসমানীর ল্যাবে সিলেটের চার জেলার মোট ১৩৪ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে ১২১ জনের রিপোর্ট নেগেটিভ আসে এবং ১৩ জনের রিপোর্ট পজিটিভ ধরা পড়ে।

এদিকে বুধবারের ১৩ জন মিলে সিলেট বিভাগে এপর্যন্ত ৩৩ জনের করোনা পজিটিভ ধরা পড়েছে। এ মধ্যে সিলেট জেলার ৬ জন, হবিগঞ্জের ১৮ জন, মৌলভীবাজারের ৩ জন ও সুনামগঞ্জের ৬ জন। তবে সিলেট জেলার প্রথম করোনা আক্রান্ত ডা. মঈন উদ্দিন গত ১৫ এপ্রিল মারা গেছেন।

  •