ছাত্রাবাসে গণধর্ষণ: সিলেট আসছে মন্ত্রণালয়ের তদন্ত কমিটি

12

সবুজ সিলেট ডেস্ক

সিলেট এমসি কলেজের ছাত্রাবাসে নববধূ গণধর্ষণের ঘটনায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়য় তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। গতকাল সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের পরিচালক (কলেজ ও প্রশাসন) মো. শাহেদুল খবীর চৌধুরী নেতৃত্বে তিন সদস্যের এই কমিটি গঠন করা হয়েছে।

এ কমিটির সদস্যরা আজ মঙ্গলবার তদন্তের কাজে সিলেট আসছেন। এমসি কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক সালেহ আহমেদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন ।

সূত্র জানায়, করোনাকালে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের মধ্যেও ছাত্রাবাস খোলা রেখে শিক্ষার্থীদের থাকতে দেওয়া নিয়ে কলেজ প্রশাসন ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েছে। এমন অবস্থায় শিক্ষামন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে এবং সে কমিটি তদন্ত আজ থেকে কাজ শুরু করতে যাচ্ছে।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে এমসি কলেজের ছাত্রাবাসে স্বামীকে আটকে রেখে নববধূকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এ ঘটনায় নববধূর স্বামীর দায়ের করা মামলায় আসামিরা হলেন- সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার উমেদনগরের রফিকুল ইসলামের ছেলে তারেকুল ইসলাম তারেক (২৮), হবিগঞ্জ সদরের বাগুনীপাড়ার মো. জাহাঙ্গীর মিয়ার ছেলে শাহ মো. মাহবুবুর রহমান রনি (২৫), জকিগঞ্জের আটগ্রামের কানু লস্করের ছেলে অর্জুন লস্কর (২৫), দিরাই উপজেলার বড়নগদীপুর (জগদল) গ্রামের রবিউল ইসলাম (২৫) ও কানাইঘাটের গাছবাড়ি গ্রামের মাহফুজুর রহমান মাসুমকে (২৫)। এছাড়া অজ্ঞাতনামা আরও তিনজনকে আসামি করা হয়।

এঘটনায় এজাহারভুক্ত পাঁচজনসহ এ পর্যন্ত সাতজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে সাইফুর, অর্জুন ও রবিউলকে গতকাল সোমবার পাঁচ দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ।