বড়লেখায় পৌর শহরে ঝুঁকিপূর্ন ডিবাইডার, দূর্ঘটনার শঙ্কা

5

বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার পৌর শহরে যানজট নিরসনে সড়কে ডিবাইডার স্থাপন করেছিলেন মেয়র আবুল ইমাম মোহাম্মদ মো. কামরান চৌধুরী।কিন্তু সেই ডিবাইডার এখন পৌর নাগরিকদের জন্য গলার কাটায় পরিনত হয়েছে।পৌর শহরের উত্তর বাজার থেকে দক্ষিন বাজার পর্যন্ত স্থাপিত এসব ডিবাইডারের বেশিরভাগই ভেঙে রড বের হয়ে গেছে।যার ফলে যে কোন সময় মারাত্মক দূর্ঘটনা ঘটার আশঙ্কা রয়েছে।

পৌরসভা সূত্রে জানা যায়, বড়লেখা পৌর শহরে যানজট নিরসনে ৩ বছর আগে সড়কে ডিবাইডার স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ করেন বড়লেখা পৌরসভার মেয়র আবুল ইমাম মো.কামরান চৌধুরী। তিনি ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন ব্যাংকের সহযোগীতায় সড়কে ডিবাইডার স্থাপন করেন। ডিবাইডার স্থাপনের পর বড়লেখা পৌর শহরের চিরচেনা সেই যানজট কিছুটা নিরসন করা সম্ভব হয়।কিন্তু সেই ডিবাইডার বেশিদিন টিকে নি। বছর দুয়েক পার হতে না হতেই গাড়ি চালকদের অসচেতনাতার ফলে সেই সব ডিবাইডার ভেঙে যায় এবং ভিতরের রড বের হয়ে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠে।

সরেজমিন পৌর শহরে দেখা যায়, যানজট নিরসনে সড়কের মধ্যখানে পৌরসভার উদ্যোগে ডিবাইডার স্থাপন করা হয়।সেই ডিবাইডার বেপেরোয়া ট্রাক, বাসের আঘাতে ভেঙে গেছে। ফলে সেই সব ডিবাইডারের রড বের হয়ে মারাত্মক ঝুঁকির সৃষ্টি করেছে। এখনি এসব ডিবাইডার সংস্কার বা সরিয়ে না নেওয়া হলে যে কোন সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটার সম্ভাবনা রয়েছে।

পৌর শহরের একাধিক নাগরিক ও পথচারী জানান, যানজট নিরসনে স্থাপিত এসব ডিবাইডার ভেঙে রড বের হয়ে গেছে।যার ফলে আমরা ঝুঁকি নিয়ে সড়ক দিয়ে চলাচল করতে হয়।আল্লাহ না করুক যদি কেউ সড়কে এক্সিডেন্ট করে তাহলে এসব ডিবাইডারের বের হওয়া রডের আঘাতে খারাপ কিছু ঘটে যেতে পারে।এছাড়া রাতে অসাবধানতা বসত কোন পথচারী এসব রডের আঘাতে আহত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। তাই আমরা পৌর মেয়রের প্রতি বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি যত দ্রুত সম্ভব ভেঙে যাওয়া এসব ডিবাইডার সরিয়ে নতুন ডিবাইডার স্থাপন করার জন্য।

এ বিষয়ে বড়লেখা পৌরসভার মেয়র আবুল ইমাম মোঃ কামরান চৌধুরী বলেন, সড়কের ভেঙে যাওয়া ডিবাইডার সরিয়ে নেওয়ার জন্য আমরা ইতিমধ্যে উদ্যোগ গ্রহণ করেছি।নতুন ডিবাইডার তৈরির কাজ চলছে।আশা করছি শীঘ্রই কাজ শেষ হয়ে যাবে।কাজ শেষ হলেই সড়কে নতুন ডিবাইডার স্থাপন করা হবে।