দক্ষিণ এশীয় এলায়েন্স অব লেবার আসালের মিশিগান চ্যাপটার ২০২১-২০২২ মেয়াদের কার্যকরী কমিটি গঠন

54

কামরুজ্জামান হেলাল, যুক্তরাষ্ট্র ::
গত ২৬ শে নভেম্বর ২০২০ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭:৩০ ঘটিকায় ভার্চ্যুয়াল প্লাটফর্ম জুমের মাধ্যমে আসাল মিশিগান চ্যাপটারের ২০২১ এবং ২০২২ অর্থবছরের কার্যকরী কমিটি গঠন করা হয়। এ সময় এলায়েন্স অব সাউথ এশিয়ান আমেরিকান লেবার আসালের ন্যাশনাল প্রেসিডন্ট এবং প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাফ মেসবাহ উদ্দীন এবং কেন্দ্রীয় কমিটির সেক্রেটারী মোহাম্মদ করিম চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

সভার শুরুতে মিশিগান চ্যাপ্টাররের প্রেসিডন্ট ড. রাব্বী আলম নভেম্বর মিটিং মিনিট এবং এজেন্ডা প্রস্তাব করেন এ সময় সভার সম্মতিক্রমে মিটিং মিনিটস্ এবং প্রস্তাবিত এজেন্ডা পাশ করা হয়। পলিটিক্যাল ডাইরেক্টর ইব্রাহীম আল-জাহিম প্রস্তাবিত নতুন কমিটির সকল সদস্যদের নাম ঘোষনা করেন এবং সকলকে ধন্যবাদ জানান।

নতুন কমিটিকে শুভেচ্ছা জানিয়ে মাফ মেসবাহ উদ্দীন বলেন আমাদের কাজ শুরু হয়েছে। আমাদের কাজ আরও অনেক বেশী রয়ে গেছে। আমরা আমাদের কমিউনিটির সার্থে একত্রে কাজ করে সামনের দিকে নিয়ে যেতে চাই। আপনাদের নেতৃত্বে মিশিগানের আসাল পরিবারের অগ্রযাত্রা সার্থক হোক।

মোহাম্মদ করিম চৌধুরী নতুন কমিটিকে ধন্যবাদ জানান এবং শুভেচ্ছা জ্ঞাপন করেন। জনাব করিম বলেন মিশিগান জো বাইডেনকে হোয়াইট হাউজে যাওয়ার পথ সুগম করেছে। আসালের আপনারা সকল নেতৃবৃন্দ এক একটি আইকন। আপনারা কাজ করে যান এবং আমাদের কমিউনিটি কে সামনের দিকে নিয়ে যান।

নতুন কমিটিতে ড. রাব্বী আলম কে পুনরায় নির্বাচত করা এবং সেক্রেটারী হিসাবে নির্বাচত করা হয় মিনহাজ রাসেল চৌধুরী কে বিগত কমিটির সেক্রটারী মোহাম্মদ ফিরোজ মিনহাজ রাসেল চৌধুরী সহ সকল কে আহ্ববান জানান এবং তিনি নতুন কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি নির্বাচিত হোন। জনাব ফিরোজ তার বক্তব্যে বলেন আমি আপনাদের সাথে আছি এবং আগামীতে ও থাকছি – সাংগঠনিক যে কোন প্রয়োজনে আমাকে জানাবেন এবং আমি থাকবো। বিগত কমিটিতে আমরা অনেক কর্মকান্ড করেছি। রোহিঙ্গা জেনোসাইড প্রটেষ্ট থেকে শুরু করে ব্লাক লাইভ মেটার প্রোটেষ্ট আমরা করেছি। ভোটার রেজিষ্ট্রেশন থেকে নির্বাচনী ক্যাম্পেইন এবং ডোর নকিং থেকে ফোন ব্যাংকিংসহ রেলী ও সিডারশিপ সেমিনার সবই আমরা করেছি। আমি নতুন কমিটির সার্বিক সফলতা কামনা করছি।

নতুন সেক্রটারী মিনহাজ রাসেল বলেন – ২০২০ এর প্রেসিডেন্সিয়াল নির্বাচনে আমাদের ভূমিকা শুধু আসালেই সীমাবদ্ধ ছিলনা, আমরা লোকাল ইউ এ ডব্লিউ আটো ইউনিয়নের সাথে কোলাবরেশন করে তাদের রেলী এবং প্রোটেষ্টে যোগদান করেছি। আমরা মিশিগানের গভর্নর গ্রেচেন হুইটমারের বরাবর রেজুলুশন এবং মেমোরেন্ডাম পেশ করেছি কভিড-১৯ মোকাবিলার জন্য স্টেট লক ডাউনের পক্ষে, যা কিনা গভর্নর একনলেজ করেছেন। আমরা করোনা পরিস্তিতির মধ্যে বিভিন্ন পরিবারের কাছে তাদের নিত্য প্রয়োজনীয় সবরারাহ করেছি। আমরা আন ইমপ্লয়েডের জন্য আমাদের কমিউনিটির মানুষদের কে সহায়তা করেছি। যখন গভর্ণরের উপর টেরেরীষ্ট হামলার প্রচেষ্ট চালানো হয়েছে – তখন আমরা স্বারকলিপি পেশ করেছি। আমাদের সভাপতি ড. রাব্বী আলম ব্লাক লাইভস্ মেটার মিভমেন্টের নেতৃত্ব করেছেন যেখানে গভর্নর হুইটম্যার এবং ল্যাফটেন্যান্ট গভর্নর গারলিন গিলক্রেস্ট যোগদান করেছেন। শুধু তাই নয় আরও সেপারেট ২ টি রেলীর নেতৃত্ব দিয়েছেন যেখানে ইউ এস সেনেটর গ্যারী পিটারস্ এবং ইউ এস কংগ্রেস ওয়োম্যান ব্যান্ডা লরেন্স জয়েন করেছেন। আমরা যৌথ ভাবে ডিট্রয়েট এবং হ্যামট্রমিক সিটির পুলিশ প্রশাশনের কাছে জর্জ ফ্লয়েডের প্রোটেষ্টের পক্ষে শান্তি পুর্ন রেলীর জন্য সুপারিশ করেছি।

মিনহাজ রাসেল বলেন আমার জন্য দোয়া করবেন যাতে আমাকে দেওয়া গুরুদায়িত্ব সঠিক ভাবে পালন করতে পারি।

নব নির্বাচত এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারী এ্যাডভোকেট নুরুল হাসান পারভেজ বলেন আমি আনন্দিত এবং গর্বিত যে আমাকে আপনারা নির্বাচত করেছেন। আমি কমিটির সকলের কাছে কৃতজ্ঞ আমাকে এই সন্মান দেওয়ার জন্য।

নব নির্বাচত এক্সিকিউটিভ ভাইস প্রেসিডন্ট সৈয়দ আলী রেজা বলেন আমি একজন গর্বিত পিতা, আমার ছেলে মেয়েরা সংক্রিয় ভাবে প্রেসিডেনশিয়াল নির্বাচনে ভলেন্টারী করেছে, আমি নিজে মিশিগান ডেমোক্রাটিক পার্টির নির্বাচত ভাইস চেয়ার এবং আমরা অনেক কষ্ট করেছি। আপনারা ভুলে যাবেন না যে, ২০১৬ সালে মিশিগানে হিলারী ক্লিনটন ১০ হাজার ভোটে পরাজিত হয়েছে এবং এবছর মাননোরিটি কমিউনিটি বিশেষ করে মুসলিম কমিউনিটি ২ লাখ ভোট দিয়েছে এবং এটা জো বাইডেনের বিজয়কে নিশ্চিত করেছে। আমরা এ বিজয়ের অংশীদার। জনাব রেজা তার ব্যাক্তিগত এবং সামাজিক অবস্থানের উপর গুরুত্ব দিয়ে বলেন আমরা যে যেই রাজনৈতিক দলের সাথে সম্পর্কিত থাকিনা কেন, মুল ধারার রাজনীতিতে আমরা এক হয়ে কাজ করছি এবং এটা আমাদের আগামী প্রজন্মের জন্য মঙ্গল জনক হবে।

উইমেন কমিটি চেয়ার হিসাবে নির্বাচত হন ড. তাগরীদ আলী। ড. আলী জানান তার জেষ্ট মেয়ে এই মুহুর্তে করোনায় আক্রান্ত হয়ে আছে এবং এটা থ্যান্ক্স গিভিং রাত তার পরও আমি এখানে – এর অর্থ হল আমরা সকলে চাই দেশের জন্য এবং আমাদের কমিউনিটির জন্য কিছু করতে। তিনি সকলকে ধন্যবাদ জানান এবং তিনি তার ওয়োম্যান কমিটি কো-চেয়ার অ্যাটর্নি মৌসুমী খান কে স্বাগত জানান।

উইমেন কমিটি কো-চেয়ার অ্যাটর্নি মৌসুমী খান বলেন আমি অানন্দিত এবং তিনি তার পার্শিয়াল ২০২০ সালের ওয়োম্যান কো-চেয়ারের নিয়োগের জন্য ড. রাব্বী কে ধন্যবাদ জানান। মৌসুমী খান বলেন তিনি বিশ্বাস করেন আমাদেরকে পার্টনারসিপ করে কাজ করতে হবে এবং আমি আমার কমিটি চেয়ার ড. আলীর সাথে এক সাথে কাজ করতে আগ্রহী। তিনি নির্বাচিত সকল নেতৃবৃন্দকে শুভেচ্ছা জানান।

সহ সভাপতি মাহাবুব রাব্বী খান বলেন আমরা কমিউনিটির জন্য নিরালশ কাজ করে যাচ্ছি। আমাদের হতাশ হবার কিছু নাই, আজ আমরা যা করছি তা আমাদের ছেলে সন্তান এবং ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য। কে কি বল্লো তাতে আমাদের কিছু যায় আসে না, তবে আমাদের মনে রাখতে হবে আমরা এখানে আমাদের সময় কে ইনভেষ্ট করছি সমাজের উন্নয়নের জন্য আজ আমি কি পেলাম এটা বড় বিষয় নয়, আমি সমাজকে কি দিতে পারলাম এটা বড় বিষয়।

সহ সভাপতি তুহিন চৌধুরী বলেন আমি আসালে নতুন। আমাকে আপনারা সুযোগ দিয়েছেন এ জন্য আমি কৃতজ্ঞ। বিশেষ ধন্যবাদ দিতে চাই ড. রাব্বী আলম কে। আমাদের প্রথম জেনারেশনের মানুষের ভাষার সমস্য, বোঝার সমস্য, জ্ঞানের সমস্যা – তবে এটা থাকবে না। আমরা এটা ওভারকাম করবো। আমার জন্য দেওয়া করবেন, আমি যাতে করে আসালের একজন ভাল কর্মী হতে পারি। আমি আরো জানতে চাই, আরো শিখতে চাই। আপনারা ভাল থাকবেন।

এক্সিকিউটিভ মেম্বার মোহাম্মদ হক বলেন আমি অভিভুত আমাকে এই কমিটিতে রাখবার জন্য আমি সত্যিই গর্বিত, আসুন আমারা একটি শক্তিশালী আসাল গঠন করি।

এক্সিকিউটিভ মেম্বার মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ বলেন আমি অত্যন্ত খুশী হয়েছি। আমি আপনাদের এই কমিটিতে নির্বাচিত হয়ে আনন্দিত। আগামীতে আসালের সফলতা কামনা করছি এবং আপনাদের সকলের সহযোগিতা কামনা করছি।

এক্সিকিউটিভ মেম্বার মোহাম্মদ ইব্রাহিম খলিল সোহেল বলেন আমি একজন নব্য অভিবাসী। আমি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতির উপর অনার্স মাস্টার্স করেছি। আমি আপনাদের সান্নিধ্যে আনন্দিত। আশা করি আপনারা আমাকে শিখিয়ে নিবেন। আমি বিশেষ ধন্যবাদ দিতে চাই আমাদের সভাপতি ড. রাব্বী আলম কে আমাকে এই সুযোগ করে দেবার জন্য
পরিশেষে আপনাদের সকলের মঙ্গল কামনা করছি।

কমিউনিটির পরিচিত মুখ নাষ্টের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য এবং মিশিগান এক্সপ্রেস খ্যাত নাজেল হুদা নাজ জুম মিটিং এ যোগদান করেন এবং তিনি আসালের সার্বিক মঙ্গল কামনা করেন।

সভাপতি এবং আসাল মিশিগানের প্রেসিডেন্ট ড. রাব্বী সকল কে ধন্যবাদ জানান এবং বিশেষ করে আসালের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাফ মেসবাহ উদ্দীন এবং ন্যাশনাল সেক্রটারী মোহাম্মদ করিম কে ধন্যবাদ দেন।
সভা পরিচালনা করেন পলিট্যিক্যাল ডাইরেক্টর ইব্রাহিম আলজাহিম। এবং এক বিশেষ দোয়ার মাধ্যমে সভার পরিসমাপ্তি হয়। দোয়া পরিচালনা করেন সভাপতি ড. রাব্বী আলম।

সবুজ সিলেট/ এস মায়াজ আহমদ তালহা

  •