অন্ধ্রপ্রদেশে অজানা রোগের হানা, দুই শতাধিক হাসপাতালে

5

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ::
বিশ্বজুড়ে চলমান অতিমারিতে প্রতিদিন আসছে নতুন মৃত্যুর খবর। এরইমধ্যে নতুন রহস্যময় অসুখের কবলে পড়েছে অন্ধ্রপ্রদেশের বাসিন্দারা। সরকারি সূত্রের বরাতে কলকাতাভিত্তিক আনন্দবাজার পত্রিকা জানিয়েছে, শিশু এবং নারীসহ সেখানে ২২৮ জন ইতোমধ্যেই বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। তবে ৭৬ জনকে এরইমধ্যে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

অন্ধ্রের ইলুরু শহরে এই রহস্যময় রোগ হানা দিয়েছে। প্রায় কাছাকাছি ধরনের উপসর্গ নিয়ে শহরের বাসিন্দারা হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। তাদের মধ্যে খিঁচুনি, কাঁপুনি, মাথা ঘুরে পড়ে যাওয়ার মতো উপসর্গ দেখা গেছে। বিষয়টি নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছেন রাজ্যের স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা।

আক্রান্তরা সবাই ইলুরু শহরেরই বাসিন্দা হলেও তারা একসঙ্গে কোনও অনুষ্ঠানে যোগও দেননি। আর তাই রোগের উৎস নিয়ে কিছুটা বিভ্রান্তির মধ্যে পড়েছেন চিকিৎসকরাও। ‘অজানা’ এই রোগের খবর পাওয়ার পর ইলুরুতে পাঠানো হয় চিকিৎসকদের একটি দল। তারা উপসর্গ খতিয়ে দেখেন। রোগীদের রক্ত পরীক্ষাও করা হয়। তবে তাতে অস্বাভাবিক কিছু মেলেনি বলে জানিয়েছে অন্ধ্রপ্রদেশ সরকারের স্বাস্থ্য দফতর।

রবিবার রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী আলা নানি বলেন, আক্রান্তদের করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে। তবে তা নেগেটিভ এসেছে। জরুরি ভিত্তিতে ইলুরুতে ১৫০ শয্যা এবং বিজয়ওয়াড়ায় আরও ৫০টি শয্যার ব্যবস্থা করা হয়েছে বলেও জানিয়েছেন নানি। যে সব জায়গায় আক্রান্ত রয়েছেন সেখানে ডোর টু ডোর সার্ভে করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। খোলা হচ্ছে মেডিকেল ক্যাম্পও।

রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী জগন্মোহন রেড্ডি বলেন, জীবনের কোনও ভয় নেই। সাধারণ মানুষের আতঙ্কিত হওয়ারও কোনও কারণ নেই। সরকার প্রয়োজনীয় সবরকম পদক্ষেপ নিচ্ছে।

সবুজ সিলেট/ এস মায়াজ আহমদ তালহা