রোহিঙ্গা সংকট সমাধানের আগে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা জরুরি: বিএনপি

5

সবুজ সিলেট ডেস্ক::
রোহিঙ্গা সংকট সমাধানের আগে বাংলাদেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা জরুরি বলে মনে করে বিএনপি। একইসঙ্গে রোহিঙ্গা সংকট সমাধানে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক মহলকে বাংলাদেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠায় নৈতিক ও যৌক্তিক ভূমিকায় এগিয়ে আসার আহ্বান জানায় দলটি।
সোমবার (১৪ ডিসেম্বর) রাজধানীর গুলশানে বিএনপির এই অবস্থান তুলে ধরেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।
সংবাদ সম্মেলনে ফখরুল বলেন, ‘রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান এবং খালেদা জিয়া যখন রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত ছিলেন সে সময় রোহিঙ্গা সমস্যার সুষ্ঠু ও সম্মানজনক সমাধান করা সম্ভব হয়েছিল। তাদের রাষ্ট্রনায়কোচিত নেতৃত্ব এবং দেশে গণতান্ত্রিক সরকার ক্ষমতাসীন থাকার কারণে এটা সম্ভব হয়েছিল। জনগণ থেকে বিচ্ছিন্ন এবং আন্তর্জাতিকভাবে দুর্বল এবং স্বৈর সরকার হিসেবে পরিচিত একটি সরকারের পক্ষে রোহিঙ্গা সমস্যার মতো একটি জটিল ও আন্তর্জাতিক সমস্যা মোকাবিলা করা সম্ভব নয়।’
রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে স্থানান্তরের বিরোধিতা করে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘ভাসানচর প্রকল্পটি মূলত সরকারের আশ্রয়ন প্রকল্প-৩ এর একটি বর্ধিত প্রকল্প। এই প্রকল্পটি বর্তমান আকণ্ঠ দুর্নীতিতে নিমজ্জিত সরকারের দুর্নীতিগ্রস্ত একটি মেগা প্রজেক্ট। ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের স্থানান্তরের জন্য প্রকল্পটিতে প্রাথমিকভাবে ২ হাজার ৩১২ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়। পরবর্তীতে অন্যান্য প্রজেক্টের ন্যায় প্রকল্প ব্যয় বৃদ্ধি করে তা ৩ হাজার ৯৫ কোটি টাকা করা হয়।’
তিনি বলেন, ‘হতাশার কথা হলো, এই প্রকল্প তথা সরকারের সুদূরপ্রসারী দুর্নীতির পক্ষে সাফাই গাইতে কিছু দলকানা সাংবাদিক দিয়ে ভাসানচরের আশ্রয় শিবিরের পক্ষে নানা ধরনের প্রোপাগান্ডা চালানো হচ্ছে। ভাবখানা এমন, রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে পাঠানোই যেনও সংকট সমাধানে সরকারের প্রধান লক্ষ্য। এটাই যেন প্রত্যাবাসন।’

সবুজ সিলেট/১৪ ডিসেম্বর/শামছুন নাহার রিমু

  •