করোনায় ৪০ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৮৭৭

2

সবুজ সিলেট ডেস্ক ::
দেশে মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরো ৪০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭ হাজার ১২৯ জনে।

মঙ্গলবার (১৫ ডিসেম্বর) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত করোনাবিষয়ক এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এছাড়া, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১ হাজার ৮৭৭ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে দেশে করোনা শনাক্ত হলো মোট ৪ লাখ ৯৪ হাজার ২০৯ জন।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪০টি ল্যাবরেটরিতে ১৯ হাজার ৩২টি নমুনা সংগ্রহ ও ১৯ হাজার ৫৪টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এ নিয়ে মোট নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা দাঁড়াল ৩০ লাখ ৫ হাজার ৫১২টি। এ সময়ে আক্রান্ত হিসেবে নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন আরো হাজার ৮৭৭ জন। দেশে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ৪ লাখ ৯৪ হাজার ২০৯ জনে।

রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ও বাড়িতে উপসর্গবিহীন রোগীসহ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন দুই হাজার ৮৮৪ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ৪ লাখ ২৬ হাজার ৭২৯ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ৯ দশমিক শূন্য ৮৫ শতাংশ। এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৬ দশমিক ৪৪ শতাংশ, শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৬ দশমিক ৩৫ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার এক দশমিক ৪৪ শতাংশ।

দেশে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত প্রথম রোগী শনাক্ত হয় গত ৮ মার্চ। এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ১৮ মার্চ প্রথম মৃত্যু হয়। এ পর্যন্ত মোট মৃত ৭ হাজার ১২৯ জনের মধ্যে পুরুষ ৫ হাজার ৪৩৯ (৭৬ দশমিক ২৯শতাংশ) ও নারী এক হাজার ৬৯০ জন (২৩ দশমিক শূন্য ৭১শতাংশ)।

গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত ৪০ জনের মধ্যে ‌বি‌শোর্ধ্ব ত্রিশোর্ধ্ব দুইজন, চ‌ল্লিশোর্ধ্ব তিনজন, পঞ্চা‌শোর্ধ্ব সাতজন এবং ষা‌টোর্ধ্ব ২৮ জন। তাদের ম‌ধ্যে ঢাকা বিভাগের ২৪ জন, চট্টগ্রামে ১০ জন, খুলনায় একজন, সি‌লেট বিভা‌গের একজন, রংপুর বিভাগের দুজন ও ময়মন‌সিংহ বিভা‌গে দুজন রয়েছেন।

এদিকে, বিশ্বব্যাপী মহামরি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রায় ৮ হাজারেরও বেশি মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। সোমবার (১৪ ডিসেম্বর) সকাল ৯টা পর্যন্ত আগের ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রায় ৯ হাজার মানুষ প্রাণ হারিয়েছিলেন।

জেএইচইউ এর তথ্য অনুযায়ী, করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৬ লাখ ২০ হাজার ৪৯০ জনে। সোমবার সকাল ৯টা পর্যন্ত এ সংখ্যা ছিল ১৬ লাখ ১২ হাজার ১৪ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় প্রায় ৬ লাখ মানুষের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৭ কোটি ২৮ লাখ ২৪ হাজার ৯৩৬ জনে। আগেরদিন সোমবার এ সংখ্যা ছিল ৭ কোটি ২২ লাখ ২১ হাজার ৬৩৪ জন।

করোনা থেকে মোট সুস্থ হয়েছেন ৪ কোটি ১২ লাখ ২২ হাজার ৫৪১ জন।

গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। চলতি বছরের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে মহামারি ঘোষণা করে। এর আগে ২০ জানুয়ারি জরুরি পরিস্থিতি ঘোষণা করে ডব্লিউএইচও।

করোনাভাইরাসে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এ পর্যন্ত এক কোটি ৬৫ লাখ ১৫ হাজার ৭১৭ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। মোট ৩ লাখ ৪৭৪ জন মৃত্যুবরণ করেছেন।

পৃথিবীর দ্বিতীয় জনবহুল দেশ ভারত রয়েছে করোনায় আক্রান্ত দেশের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে এবং মৃত্যু নিয়ে আছে তৃতীয় অবস্থানে। ল্যাটিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল আক্রান্ত দেশের তালিকায় তৃতীয় স্থানে থাকলেও সর্বাধিক মৃতের সংখ্যায় রয়েছে দ্বিতীয়তে।

ভারতে মোট আক্রান্ত ৯৮ লাখ ৮৪ হাজার ১০০ জন এবং মারা গেছেন ১ লাখ ৪৩ হাজার ৩৫৫ জন। ব্রাজিলে মোট শনাক্ত রোগী ৬৯ লাখ ২৭ হাজার ১৪৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৮১ হাজার ৮৩৫ জনের।

এদিকে দেশে মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে একদিনে আরো ৩৭ জন মারা গেছেন। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭ হাজার ৮৯ জনে দাঁড়িয়েছে।

এছাড়া, নতুন করে ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৭৯৯ জনের শরীরে। যার ফলে মোট আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছেছে ৪ লাখ ৯২ হাজার ৩৩২ জনে।

সোমবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনা সংক্রান্ত নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ৩৭ জনের মধ্যে ২৭ জন পুরুষ এবং নারী ১০ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪০টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ করা হয় ১৭ হাজার ২৪২টি। অ্যান্টিজেন পরীক্ষাসহ নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১৬ হাজার ৮২৮টি। ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ১০.৬৯ শতাংশ এবং এ পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৬.৪৯ শতাংশ। মোট মৃত্যুর হার ১.৪৪ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী, করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন আরো ২ হাজার ৯৪৯ জন। এ নিয়ে দেশে মোট সুস্থ ব্যক্তির সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪ লাখ ২৩ হাজার ৮৪৫ জনে। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৬ দশমকি ০৯ শতাংশ।

এর আগে, গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্তের পর ১৮ মার্চ প্রথম একজনের মৃত্যুর কথা জানায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। আর বর্তমানে দেশে করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা তিন লাখ অতিক্রম করে গত ২৬ আগস্ট এবং মৃতের সংখ্যা ৬ হাজার ছাড়িয়েছে।

সবুজ সিলেট/ এস মায়াজ আহমদ তালহা

  •