বিমানে ঘুরে ধনীদের ব্যাগ চুরি করাই তার পেশা!

24

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ::
অর্চনা বড়ুয়ার বাড়ি ভারতের কলকাতায়। তবে থাকেন বেঙ্গালুরুতে। প্রতিদিন সকালে কোন এক ফ্লাইটে উঠে চলে যান অন্য কোন শহরে। সারাদিন অভিজাত শপিং কমপ্লেক্সগুলোতে ঘোরাফেরা করতেন। এরপর খুঁজে বের করতেন কোন ধনী ব্যক্তিকে। তারপর সুযোগ বুঝে তার হাতব্যাগটা নিয়ে সরে পড়তেন। সন্ধ্যায় আবারও বিমানে করে ফিরে আসতেন নিজের ঠিকানা, বেঙ্গালুরুতে।

বেঙ্গালুরু থেকে এই নারীকে গ্রেফতার করেছে মুম্বাই পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ। অসংখ্য হাইপ্রোফাইল চুরির মামলায় অভিযুক্ত তিনি।

পুলিশ জানিয়েছে, অর্চনা আগে অর্কেস্ট্রা বারে গান গাইতেন। পরে পেশা হিসেবে বেছে নেন দেশের সর্বত্র ঘুরে ঘুরে চুরি করা। ২০০৯ থেকে চুরি করছেন তিনি। অর্কেস্ট্রা সিঙ্গারের কাজ হারানোর পর এসেছেন এই পেশায়।

মুম্বাই পুলিশ আরও জানিয়েছে, গত বছর থেকে এই নারীর খোঁজ করছিলেন তারা। এক নারী অভিযোগ করেন, মুম্বাইয়ের লোয়ার প্যানেলের হাই স্ট্রিট ফিনিক্স শপিংমলের জারা শোরুম থেকে তার ব্যাগ চুরি হয়ে যায়। ব্যাগে তার ফোন, সোনার গয়না ও ১৪.৯০ লাখ নগদ টাকা ছিল।

সিসিটিভি ফুটেজে পুলিশ দেখে, অভিযোগকারি নারী বিল দেওয়ার জন্য ব্যাগটি মাটিতে নামিয়ে রেখেছিলেন। সেটি তুলে নিয়ে হেটে চলে যান অর্চনা। তদন্তে নেমে তারা দেখে, ২০১৮ সালেও লোয়ার প্যানেলের অন্য একটি জারা আউটলেট এবং শিবাজি পার্কের এক ল্যাকমে বিউটি পার্লারে এমনই অপরাধ ঘটেছে। সবখানেই অপরাধী একই ব্যক্তি।

গ্রেফতারের পর তার কাছ থেকে গয়না, টাকা, মোবাইল ফোন এবং ব্যাগে থাকা কাগজপত্র উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। তিনি কলকাতা, হায়দরাবাদ ও বেঙ্গালুরুতেও একই ধাঁচে চুরি করেছেন বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করেছেন।

সবুজ সিলেট/ এস মায়াজ আহমদ তালহা