‘নাতাশা আমাকে তিন থেকে চার বার রিজেক্ট করে’

14

বিনোদন ডেস্ক :: ২০২০ সালেই বিয়ে হওয়ার কথা ছিল বরুণ ধাওয়ান ও নাতাশা দালালের। কিন্তু করোনা তাদের শুভকাজে বাধা হয়ে দাঁড়ায়। এর মাঝেই সম্প্রতি বরুণ-নাতাশার সম্পর্কের অনেক অজানা কাহিনী উঠে আসে কারিনা কাপুরের রেডিও শো ‘হোয়াট ওমেন ওয়ান্ট’-এ। এতে অতিথি হয়েছিলেন বরুণ।

সেখানেই বরুণ তার প্রেমের সেই দিনগুলোর কথা খোলাসা করেন। তিনি বলেন, ‘আমার সঙ্গে নাতাশার প্রথম পরিচয় যখন আমি ক্লাস সিক্সে পড়ি। আমরা ডেটিং শুরু করিনি, তবে খুব ভালো বন্ধু ছিলাম ক্লাস ইলেভেন বা টুয়েলভ গ্রেড পর্যন্ত’।

স্কুলে নাতাশাকে প্রথম দেখে ঠিক কীরকম অনুভূতি হয়েছিল- এমন প্রশ্নের জবাবে ডেভিড ধাওয়ান পুত্র বলেন, ‘আমার এখনও মনে আছে, আমরা মানেকজি কুপারে পড়তাম। ও ইয়েলো হাউজে ছিল আর আমি রেড হাউজে। বাস্কেটবল কোর্টে প্রথম আলাপ, লাঞ্চ ব্রেকের সময়। ওই টাইমে খাবার আর এনার্জি ড্রিঙ্ক দেওয়া হত। ওর হাঁটা আমার মনে আছে। ওকে দেখে আমার মনে হয়েছিল আমি প্রেমে পড়ে গেছি! এটাই ঘটেছিল’।

বরুণ আরও বলেন, ‘নাতাশা আমাকে তিন থেকে চার বার রিজেক্ট করে। তবে আমি কিন্তু হাল ছাড়িনি’। অভিনেতা এই কথাও ফাঁস করেন যে, তার বরাবর ইচ্ছা ছিল নাতাশার সঙ্গে লিভ ইন করার। তবে পরিবারের আপত্তির কারণে তা সম্ভব হয়নি। বরুণ বলেন, ‘নাতাশার বাবা-মার এই ব্যাপারটা নিয়ে কোনও সমস্যা নেই। তবে আমার বাড়িতে পুরো উল্টো’।

এ বছর নাতাশা করবা চৌথ ব্রতও পালন করেছেন। তারপর তাদের বিয়ের জল্পনা আরও জোরালো হয়েছে।

নাতাশা একজন ফ্যাশন ডিজাইনার। নিউইয়র্কে ফ্যাশন ডিজাইনিংয়ের কোর্স করেছেন তিনি।

এদিকে বরুণ ইন্ডাস্ট্রিতে প্রথম কাজ করেন সহকারী পরিচালক হিসেবে। ‘মাই নেম ইজ খান’ ছবিতে করণ জোহরের সহকারী ছিলেন তিনি। এরপর ‘স্টুডেন্ট অব দ্য ইয়ার’-এ নায়কের ভূমিকায় অভিনয় করেন। এছাড়া, ‘হাম্পটি শর্মা কি দুলহনিয়া’, ‘বদলাপুর’, ‘বদ্রীনাথ কি দুলহনিয়া’, ‘কলঙ্ক’, ‘স্ট্রিট ডান্সার থ্রি ডি’, ‘যুগ যুগ জিও’ এবং ‘কুলি নম্বর ওয়ান’-এ অভিনয় করেছেন বরুণ। সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস