ট্রাম্প-সমর্থকদের ৭০ হাজার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করলো টুইটার

5

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক::
যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেস ভবন ক্যাপিটল হিলে নজিরবিহীন হামলার পর বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সমর্থকদের ৭০ হাজার টুইটার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। কিউঅ্যানন কনটেন্টের পোস্ট শেয়ার করায় এ ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে টুইটার। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সমর্থকরা অনেকদিন ধরেই ‘কিউঅ্যানন’ নামে মিথ্যা ষড়যন্ত্রের একটি তত্ত্ব উপস্থাপনের চেষ্টা করছেন। সেই ষড়য়ন্ত্র তত্ত্বের ভিত্তিতে প্রচার করা হচ্ছিল ট্রাম্পকে সরাতে শিশু যৌন নিগ্রহকারীরা যুক্ত, যাদের মধ্যে রয়েছেন ডেমোক্র্যাটদের বড় নেতা, হলিউড সেলেব্রিটিরা। ৬ জানুয়ারি ক্যাপিটল হিলের প্রশাসনিক ভবনে ট্রাম্প সমর্থকরা হামলা চালানোর পর কিউঅ্যানন কনটেন্টের পোস্ট শেয়ারকারী অ্যাকাউন্টগুলো নিয়ে তদন্ত শুরু করে টুইটার কর্তৃপক্ষ। সেই সূত্র ধরেই সোমবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমটি জানিয়েছে, শুক্রবার থেকে এ পর্যন্ত তারা ৭০ হাজার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছে।

টুইটার থেকে দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়, ‘এমন এমন টুইট করা হয়েছে এই অ্যাকউন্টগুলি থেকে, যেগুলি সরাসরি সহিংসতায় ইন্ধন জোগাতে পারে। ফলে যারা ‘কিঅ্যানন’ বিষয়ে কোনও আপত্তিকর পোস্ট শেয়ার করেছেন যেগুলি সরাসরি সহিংসতায় ইন্ধন দিতে পারে, সেগুলি সরিয়ে নেওয়া হল। পাশাপাশি যে ৭০ হাজার অ্যাকাউন্ট থেকে ক্রমাগত এই ধরনের পোস্ট দেওয়া হচ্ছিল সেগুলি বন্ধ করে দেওয়া হলো।’

গত শুক্রবার টুইটার ঘোষণা করে, যে বা যারা এই মিথ্যা ষড়য়ন্ত্রের তত্ত্ব দাঁড় করাচ্ছেন তাদের অ্যাকাউন্টও সরিয়ে নেওয়া হবে। তারা মনে করছে, অতি ডানপন্থী সমর্থকদের উক্তি অনেক সময়েই সহিংসতাকে প্ররোচনা দেয়। এগুলো বন্ধ না করলে ভবিষ্যতে হঠাৎ করে বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হতে পারে আমেরিকায়।