ছেলের বিয়ের বিষয়ে যা বললেন ফেরদৌস ওয়াহিদ

14

বিনোদন ডেস্ক :: তৃতীয়বারের মতো বিয়ের পিঁড়িতে বসলেন সময়ের জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী ও মিউজিশিয়ান হাবিব ওয়াহিদ।

হাবিব ওয়াহিদ নিজেই তার ফেসবুকে মঙ্গলবার বিয়ের খবরটি জানিয়েছেন। পাত্রী আফসানা চৌধুরী শিফা ইডেন মহিলা কলেজের মার্কেটিং বিভাগের শিক্ষার্থী।

হাবিব ওয়াহিদের এই বিয়ের খবরই ছিল সংগীত জগতে মঙ্গলবারের আলোচিত বিষয়।

অথচ ছেলের বিয়েতে উপস্থিত থাকা তো দূরের কথা এ বিষয়ে তেমন কিছু জানেন না তার বাবা কণ্ঠশিল্পী ফেরদৌস ওয়াহিদ।

ছেলে কবে, কতো তারিখে বিয়ে করেছেন সেটাও জানা নেই তার।

এ নিয়ে গণমাধ্যমকে ফেরদৌস ওয়াহিদ বলেন, আমি শুনেছি হাবিব দু-তিন দিন আগে বিয়ে করেছে। আমাকে কাল রাতে ফোন করেছিল। শুনে আমি বললাম, যা-ই হোক যেহেতু বিয়ে করে ফেলেছ- তোমাদের জন্য শুভকামনা থাকবে সবসময়।

ছেলের বিয়েতে কেন ছিলেন না প্রশ্নের আগেই ফেরদৌস ওয়াহিদ বলেন,‘আমাকে হাবিবই ফোন করে বলল, একটা বিয়ে হলো। আমি বললাম, শাবাশ। অভিনন্দন। ছেলে হিসেবে আমার যতটুকু বলার দরকার, বলে দিয়েছি।’

ছেলের বিয়ের বিষয়ে সেভাবে কিছু না জানার বিষয়টি খোলাশা করেন এক সময়ের জনপ্রিয় পপ গায়ক।

ফেরদৌস ওয়াহিদ বলেন, আমি তো গ্রামে থাকি। এখানে নেটওয়ার্ক দুর্বল। আমি ‘ওয়াই-ফাই’ দিয়ে কথা বলি। ঢাকার সবার সঙ্গে আমার ওয়াই-ফাই দিয়ে কথা হয়। আমাকে হয়তো ওয়াই-ফাইয়ে পায়নি। গতকাল রাতে যখন পেল তখন আমাকে বলল, বাবা আমি বিয়ে করেছি। তাছাড়া এ নিয়ে কোনো সমস্যা দেখছি না। আমি উদার মানসিকতার। আমি মনে করি, প্রত্যেক ব্যক্তির নিজস্ব জীবন পরিচালনার স্বাধীনতা রয়েছে। আমার ছেলে তার মতোই জীবন চালনা করবে। সে বিয়ে করেছে, আমি বলেছি তোমাদের জন্য শুভকামনা থাকবে। আমাকে সে কনে সম্পর্কে বিস্তারিত বলেছে। আমি আমার ছেলের জন্য দোয়া রেখেছি। কারও ব্যক্তিগত জীবনে আমি হস্তক্ষেপ করি না।

মামনিয়াখ্যাত এই জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী বলেন, ‘আমার ছেলের সঙ্গে আমার খুবই ভালো সম্পর্ক।নিশ্চই সে খারাপ কোনো সিদ্ধান্ত নেবে না। এখন আমি শুধু বলতে পারি, আপনারা আমার ছেলের নতুন জীবনের জন্য দোয়া করবেন।’

  •